লিওনেল মেসিকে অলিম্পিক দলে রাখার জন্য অনেক চেষ্টাই করেছিলেন আর্জেন্টিনার অনূর্ধ্ব-২৩ দলের কোচ হ্যাভিয়ের মাশ্চেরানো। একসময় মেসির কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে জাতীয় দলের নীল সাদা জার্সিতে লড়েছেন। বার্সেলোনাতেও দুজনে মিলে পার করেছেন অনেকটা সময়। এবার মেসিকে নিজের দলে পেতে চেয়েছিলেন কোচ মাশ্চেরানো।

কিন্তু প্যারিস অলিম্পিকে অংশগ্রহণ ‘কিছুটা অতিরিক্ত’ হয়ে যাবে বলে জানিয়েছিলেন মেসি। মাশ্চেরানো হাত বাড়িয়েছিলেন অ্যাস্টন ভিলার এমিলিয়ানো মার্টিনেজের দিকে। কিন্তু তাকেও ছাড়তে রাজি হয়নি ক্লাব কর্তৃপক্ষ। শেষ পর্যন্ত ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ থেকে মাশ্চেরানো পেয়েছেন বিশ্বকাপ জেতা আরেক তারকা হুলিয়ান আলভারেজকে।

ম্যানচেস্টার সিটির এই তারকার সঙ্গে আর্জেন্টিনার বিশ্বকাপ জেতা স্কোয়াডের আরও একজন যুক্ত হচ্ছেন মাশ্চেরানোর দলে। পর্তুগিজ লিগের দল বেনফিকা থেকে আসবেন অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার নিকোলাস ওতামেন্ডি। তিনজন সিনিয়রের মধ্যে বাকি ফুটবলার আয়াক্স আমস্টারডামে খেলা গোলরক্ষক জিরোনোমা রুল্লি।

এদের সঙ্গে দলে আছেন যুক্তরাষ্ট্রের মেজর লিগ সকারের উজ্জ্বল তারকা থিয়াগো আলমাদা আর নতুন মেসি খেতাব পেয়ে যাওয়া ক্লদিও এচেভেরি। এছাড়া দলে আছেন ক্রিশ্চিয়ান মেদিনা এবং ইজিকুয়েল ফার্নান্দেজের মতো উঠতি সেনসেশনরা।

অলিম্পিকের এবারের আসরে আর্জেন্টিনার প্রথম ম্যাচ মরক্কোর বিপক্ষে। গ্রুপ ‘বি’তে বাকি ম্যাচগুলোতে তাদের প্রতিপক্ষ ইউক্রেন এবং ইরাক।

গোলরক্ষক: লিয়ান্দ্রো ব্রেই, জিরোনোমা রুল্লি

ডিফেন্ডার: মার্কো ডি সিজার, হুলিও সোলার, জোয়াকিন গার্সিয়া, গনজালো লুজান, ব্রুনো অ্যামিওনে, নিকোলাস ওতামেন্ডি

মিডফিল্ড: ইজিকুয়েল ফার্নান্দেজ, সান্তিয়াগো হেজে, ক্রিশ্চিয়ান মেদিনা, কেভিন জেনন

ফরোয়ার্ড: গুইলিয়ানো সিমিওনে, লুসিয়ানো গুন্ডো, থিয়াগো আলমাদা, ক্লদিও এচেভেরি, হুলিয়ান আলভারেজ, লুকাস বেল্ট্রান।

বিকল্প: অ্যারন কুইরোজ, ফেডেরিকো রডোন্ডো, ফ্যাব্রিজিও ল্যাকোভিচ, হুয়ান নারদোনি।

আরাও পড়ুন... সেরা উক্তি