প্রায় ৪ ফুট লম্বা একটি রাসেলস ভাইপার ধরে কৌটায় ভরে গ্রামে গ্রামে ঘুরছেন কুষ্টিয়ার সদর উপজেলার হরিপুর এলাকার শহিদুল ইসলাম (৪৮) নামের এক জেলে।

বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) সন্ধ্যায় কুষ্টিয়া সদর উপজেলার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নের আমজাদ মোড় এলাকায় গড়াই নদীর পাড় থেকে সাপটিকে ধরেন ওই জেলে। পরে সাপটিকে কৌটায় ভরে সচেতনতার জন্য গ্রামে গ্রামে ঘুরছেন তিনি।

শহিদুল ইসলাম সদর উপজেলার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নের আমজাদ মোড় এলাকার মো. আফাজ উদ্দিনের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় শহিদুল ইসলাম তার ছোট ছেলেকে নিয়ে নদীতে মাছ ধরে বাড়ি ফেরার পথে সাপটি দেখতে পায়। পরে সাপটিকে মেরে ফেলেন তিনি। সাপটি ভয়ংকর ও বিষধর হওয়ায় লোকজনের মাঝে পরিচিত করতে এবং সবাইকে সচেতন করতে গ্রামে গ্রামে ঘুরেছেন শহিদুল।

জেলে শহিদুল ইসলাম জানান, নদী থেকে মাছ ধরে আসার পথে আমার ছেলে প্রথমে সাপটি দেখতে পায়। পরে আমাকে দেখালে সাপটিকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে মেরে গ্রামবাসীকে দেখানোর জন্য নিয়ে আসি।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পার্থ প্রতিম শীল জানান, মানুষ আতঙ্কে অনেক কিছু করে ফেলেন। রাসেলস ভাইপার সাপটি নদী তীরবর্তী এলাকায় বেশি দেখা যাচ্ছে। তবে সবাইকে সচেতন হওয়ার অনুরোধ করছি।

আরাও পড়ুন... সেরা উক্তি